Skip to content
Home » কাশি দূর করার জন্য কার্যকরী ঘরোয়া উপায়

কাশি দূর করার জন্য কার্যকরী ঘরোয়া উপায়

কাশি দূর করার জন্য কার্যকরী ঘরোয়া উপায়

হ্যালো ভিউয়ার্স আসসালামু আলাইকুম । আশা করি আপনারা সবাই ভাল আছেন । আজকে আমি আমার পোস্টটি সাজিয়েছি কাশি দূর করার কয়েকটি কার্যকরী উপায় সম্পর্কে । কাশি আমাদের বিভিন্ন কারণে হতে পারে । তবে মৌসুম পরিবর্তনে বা শীতকাল আসলেই কাশির সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়ে যায় । একেকজনের কাশি একই কারণে হতে পারে । কাশি হওয়ার কয়েকটি কারণ আছে যেমন যক্ষ্মার কারণে অতিরিক্ত কাশি হয়, ফুসফুসের সমস্যার কারণে কাশি হয়, অতিরিক্ত ধূমপান এর কারণে কাশি হয়, অ্যাজমা থাকার কারণে কাশি হয় । তবে কাশি হলেই হুট করে এন্টিবায়োটিক ট্যাবলেট খাওয়া উচিত নয় ।

কাশির সারানোর জন্য কয়েকটি ঘরোয়া উপায় আছে আপনি এই উপায় গুলো অবলম্বন করলেও দীর্ঘস্থায়ী কাশিও সেরে ফেলতে পারবেন । সে কারণে এই নিয়মগুলো আপনাকে ভালোভাবে মেনে চলতে হবে আর জানতে হবে কোন কোন  ঘরোয়া উপায়ে মাধ্যমে আপনি আপনার কাশি উপশম করতে পারবেন।তারপরও যদি আপনার কাশি থেকে থাকে তাহলে বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে ওষুধ সেবন করবেন । তাই এখন জেনে নেয়া যাক কাশি সারানোর জন্য ঘরোয়া উপায় গুলো সম্পর্কে বিস্তারিত সকল তথ্য ।

কাশি দূর করার ঘরোয়া উপায়

আপনি কি কাশি দূর করার ঘরোয়া উপায় গুলো সম্পর্কে জানার জন্য এসেছেন  । তাহলে আমাদের আজকের এই পোস্টে আপনাকে স্বাগতম । কারণ আজকে আমি আমার  পোষ্টের মাধ্যমে কাশি দূর করার  ঘরোয়া উপায় গুলো সম্পর্কে কিছু আলোচনা করব । অনেকেই আছেন জানেন না কিভাবে ঘরোয়া উপায়ের মাধ্যমে কাশি দূর করা হয় সে বিষয়গুলো সম্পর্কে । তাই তারা গুগলে সার্চ করে থাকেন এ বিষয়ে জানার জন্য । তাই তাদের কথা চিন্তা করে আজকে আমি আমার পোষ্টের মাধ্যমে তুলে ধরব কাশি দূর করার ঘরোয়া উপায় গুলো সম্পর্কে ।

খুসখুসে বিরক্তিকর কাশি দূর করার উপায়

  1. মধু– মধু কাশি উপশম করতে খুবই কার্যকরী ।আপনি যদি দিনে দুই থেকে তিনবার মধু এক চামচ করে সেবন করেন তাহলে দেখবেন কাশি আপনার কমে গেছে তবে অবশ্যই আপনাকে খাঁটি মধু খেতে হবে । অথবা যষ্টিমধু খেয়েও আপনি আপনার কাশি কমাতে পারবেন কারণ যষ্টির মধ্যে গলা পরিষ্কার করে এবং আপনার কন্ঠকে আরো সুন্দর করে তোলে ।
  2. তুলসী পাতা– তুলসী পাতা খেতে রস করে কয়েক ফোঁটা মধু মিশিয়ে যদি খান তাহলে দেখবেন আপনার কাশি কমে গেছে ।
  3. লেবুর রস– এক গ্লাস গরম পানিতে অর্ধেক লেবু এবং এক চামচ মধু মিশিয়ে প্রতিদিন ২-৩ বার খেলে দেখবেন আপনার কাশি অনেকটা উপশম হয়েছে । আর গলা ব্যথা থাকলে খুব দ্রুতই সেরে যাবে ।
  4. গরম দুধ— গরম দুধে এক চামচ মধু মিশিয়ে পান করুন দেখবেন আপনার কাশি অনেকটা উপসম হবে ।
  5. বাসক পাতা– বাসক পাতা পানিতে সেদ্ধ করে সেই পানি থেকে পান করলে কাশি উপশম্য হবে বাসক পাতা কাশি  সারিয়ে তোলার জন্য খুবই উপকারী ।
  6. আদা– আদা ছোট ছোট করে কেটে লবণ দিয়ে কিছুক্ষণ পর পর খেলে দেখবেন আপনার কাশি অনেকটা উপশম হবে ।
  7. রং চা– রং চায়ে লবঙ্গ, আদা, লেবু মিশিয়ে খেলে কাশি অনেকটা কমে যাবে 
  8. গড়গড়া করা– প্রত্যেকদিন কুসুম কুসুম গরম পানি তে লবণ মিশিয়ে  গড়গড়া করলে দেখবেন আপনার গলা ব্যথা আর কাশি থাকলে কাশি অনেকটা কমে যাবে । এই পদ্ধতি গুলো অবলম্বন করলে আপনারা ঘরোয়া উপায়ে কাশি উপশম্য করতে পারবেন ।

শুকনো কাশি কমানোর  জন্য করনীয়

শুকনো কাশি কমাতে চাইলে উপরের ঘরোয়া নিয়ম গুলো ফলো করুন তাহলে দেখবেন আপনার শুকনো কাশি একদমই সেরে গেছে । তবে শুকনো কাশি হলে আপনাকে আরো কিছু নিয়ম মেনে চলতে হবে । তাহলে আপনি দ্রুত এই সমস্যাগুলো থেকে সমাধান পেতে পারবেন । আর উপরে নিয়মগুলো সুন্দরভাবে মেনে চলার চেষ্টা করবেন । তাও যদি ফল না পান তাহলে  বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ নিবেন ।

  • ধূমপান করা বাদ দিন কারণ ধূমপান ফুসফুসের জন্য ক্ষতিকর এবং ধূমপান ড্রাই কফ বাড়িয়ে দেয়।
  • যাদের ঠাণ্ডা-কাশির সমস্যা রয়েছে এমন মানুষদের কাছে যাওয়া এড়িয়ে চলুন।
  • দূষিত বাতাস থেকে দূরে থাকুন। বাড়িতে ইন্ডোর প্ল্যান্ট রাখার চেষ্টা করুন।
  • আপনার যদি অ্যাসিডিটির সমস্যা থাকে তবে ক্যাফেইন, অতিরিক্ত ঝালযুক্ত খাবার ও চকলেট এড়িয়ে চলুন।
  • প্রতিদিন কমপক্ষে ৭-৮ ঘণ্টা ঘুমের চেষ্টা করুন। কারণ না ঘুমিয়ে দুশ্চিন্তা করলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে যায় আর এতে করে শুকনো কফের সমস্যা সারতে অনেক সময় লাগতে পারে।

সর্বশেষ কথা,

 আমি আমার পোষ্টের মাধ্যমে কাশি থেকে মুক্তির সহজ কয়েকটি ঘরোয়া উপায় তুলে ধরেছি । আপনারা চাইলে খুব সহজেই এ নিয়মগুলো ফলো করে কাশি থেকে মুক্তি পেতে পারেন । এ ধরনের আরো পোস্ট পেতে আমাদের ওয়েবসাইটের সাথেই থাকুন । আমাদের ওয়েবসাইটে পরিদর্শন করার জন্য আপনাদের সকলকে ধন্যবাদ ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *